২০শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ| ৪ঠা জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ| ৪ঠা জিলহজ, ১৪৪৩ হিজরি| রাত ১:১২| বর্ষাকাল|
শিরোনাম
শ্রীপুরে জমির মালিকানা দ্বন্ধে ১’শ কলাগাছ কাটলো বড় ভাই মা দিবসে আল-হেরা হাসপাতালের বিনামুল্যে মেডিকেল ক্যাম্প মাওনা বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের ২০০৩ব্যাচের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত ময়মনসিংহে ইনফিনিটি মেগা মলের উদ্বোধন শ্রীপুরে শিক্ষকের উপর হামলা, প্রতিবাদে মানববন্ধন শ্রীপুরে শিক্ষকের উপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন মাদরাসার ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের দায়িত্ব নিলেন সাংবাদিক আবুল কালাম আজাদ শ্রীপুরে চাঁদাবাজির মামলায় ইউপি সদস্য গ্রেপ্তারের প্রতিবাদে বিক্ষোভ প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে গুণীজনদের সম্মাননা দিলো স্টুডেন্ট এন্ড হিউম্যান লিংক শ্রীপুরে জমকালো আয়োজনে যুগান্তরের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

গাজীপুর সদরে গড়ে ওঠেনি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : বুধবার, এপ্রিল ২৫, ২০১৮,
  • 45 বার

গাজীপুর একটি শিল্পসমৃদ্ধ জেলা। ২০১৩ সালে গাজীপুর সিটি করপোরেশন প্রতিষ্ঠার পাশাপাশি মির্জাপুর, পিরুজালী, ভাওয়ালগড় ও বাড়িয়া ইউনিয়ন নিয়ে গাজীপুর সদর উপজেলা গঠিত হয়। ২০১১ সালের আদমশুমারি অনুযায়ী গাজীপুর সদর উপজেলায় জনসংখ্যা ১ লাখ ৯৪ হাজার ২৯৭ জন। তবে উপজেলা চেয়ারম্যান ও সদরের ইউপি চেয়ারম্যানদের মতে উপজেলায় বর্তমান জনসংখ্যা ছয় লাখের বেশি।

সদরে গত এক যুগে অসংখ্য শিল্পকলকারখানা গড়ে উঠেছে। কিন্তু উপজেলার গুরুত্ব ও জনসংখ্যা বিবেচনায় সরকারি স্বাস্থ্য খাতে তেমন কোনো মানোন্নয়ন ঘটেনি। সদর উপজেলা প্রতিষ্ঠার পাঁচ বছর পেরিয়ে গেলেও এ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স গড়ে ওঠেনি।

সদরের হেলথ ইন্সপেক্টর খোরশেদ আলম জানান, গাজীপুরের মির্জাপুর ইউনিয়নে তিনটি, পিরুজালীতে চারটি, ভাওয়ালগড়ে একটি ও বাড়িয়া ইউনিয়নে পাঁচটি কমিউনিটি ক্লিনিক রয়েছে। এর মধ্যে মির্জাপুর, পিরুজালী, ভাওয়ালগড় ও বাড়িয়া ইউনিয়নে চারটি ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কেন্দ্র থাকার কথা থাকলেও আছে মাত্র একটি। সেটি মির্জাপুর ইউনিয়ন স্বাস্থ্যকেন্দ্র। এদিকে চারটি ইউনিয়নে ২৪ জন কমিউনিটি হেলথ কেয়ার প্রোভাইডার (সিএইচসিপি) থাকার কথা থাকলেও আছে মাত্র আট জন।

সদর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা আফজালুর রহমান জানান, অন্য জেলার মতো গাজীপুরেও সদর হাসপাতাল রয়েছে। সদরবাসী তাদের স্বাস্থ্যসেবা শহরের শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে পাচ্ছেন। তবে সদরের গুরুত্ব, দূরত্ব এবং জনসংখ্যা বিবেচনায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স গড়ে তোলা অত্যন্ত জরুরি।

সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ইজাদুর রহমান মিলন জানান, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জন্য একাধিকবার সংশ্লিষ্ট বিভাগকে রেজুলেশন করে জানানো হয়েছে। মানবিক এ বিষয়টি বিবেচনার জন্য তিনি সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন।

গাজীপুর জেলা প্রশাসক ড. দেওয়ান মুহাম্মদ হুমায়ূন কবীর জানান, গাজীপুর সদর উপজেলায় একটি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স তৈরি করা অত্যন্ত জরুরি। এতে সদরবাসী উপকৃত হবে। এ ব্যাপারে দ্রুত খোঁজখবর নিয়ে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

গাজীপুর-৩ আসনের এমপি রহমত আলী বলেন, গাজীপুর সদর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জন্য প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ